ইতিহাস গড়া অভিষেক হলো সেই কুলির ছেলের

ক্রিকেট

এক সফরে জীবনই বদলে গেল সেই কুলির ছেলের। আইপিএলের দুরন্ত পারফর্ম্যান্সের সুবাদে নেট বোলার হিসেবে জাতীয় দলের সঙ্গে অস্ট্রেলিয়ায় উড়ে যাওয়ার সুযোগ পেয়ে যান অনেক নিম্নবিত্ত পরিবার থেকে বেড়ে উঠা পেসার থারাঙ্গাসু নটরাজন। পরে কেকেআরের বরুণ চক্রবর্তী কাঁধের চোটে টি-২০ স্কোয়াড থেকে ছিটকে যাওয়ায় ভারতের টি-২০ দলে ঢুকে পড়নে নটরাজন।


অস্ট্রেলিয়ায় ওয়ান ডে সিরিজ শুরুর আগে নভদীপ সাইনি পিঠে ব্যথা অনুভব করায় জাতীয় নির্বাচকরা নটরাজনকে ভারতের ওয়ান ডে স্কোয়াডেও ঢুকিয়ে দেন।

ওয়ান ডে ও টি-২০ সিরিজে চমকপ্রদ অভিষেক হয় নটরাজনের। বিশেষ করে টি-২০ সিরিজে নজরকাড়া বোলিং করেন ইয়র্কার বিশেষজ্ঞ। সীমিত ওভারের সিরিজ শেষ হলেও নটরাজনকে টিম ম্যানেজমেন্ট অস্ট্রেলিয়ায় রেখে দেয় টেস্ট স্কোয়াডের সঙ্গে। নেট বোলার হিসেবে স্কোয়াডে থাকলেও তৃতীয় টেস্টের আগে টিম ম্যানেজমেন্টের অনুরোধক্রমে নির্বাচকরা টেস্ট স্কোয়াডেও জায়গা করে দেন নটরাজনকে।

এবার একই সঙ্গে বুমরাহ, অশ্বিন ও জাদেজা চোট পেয়ে দল থেকে ছিটকে যাওয়ায় গাব্বায় টেস্ট অভিষেক হয় তরুণ পেসারের।

ব্রিসবেনে টেস্ট ক্যাপ হাতে পাওয়া মাত্র নটরাজন ভারতীয় ক্রিকেটের ইতিহাসে জায়গা করে নেন। তিনিই প্রথম ভারতীয় ক্রিকেটার, একই সফরে যাঁর টেস্ট, ওয়ান ডে ও টি-২০ তিন ফর্ম্যাটেই আন্তর্জাতিক অভিষেক হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *