রোনালদোর জাদুতে জয়ে ফিরল জুভেন্টাস

ক্লাব ফুটবল

ইতালিয়ান সিরি-আ’র ম্যাচে জয় পেয়েছে জুভেন্টাস। পয়েন্ট টেবিলের একেবারে তলানির দল ক্রোতোনেকে উড়িয়ে দিয়েছে বর্তমান শিরোপাধারীরা। এই জয়ে লিগ টেবিলের তৃতীয়স্থানেও উঠে এসেছে বাইয়েনকোরিরা।

সব ধরনের প্রতিযোগিতা মিলিয়ে টানা দুই হারের পর অবশেষে জয়ের স্বাদ পেল জুভেন্টাস। লিগে গত রাউন্ডে নাপোলির মাঠে ১-০ ব্যবধানে হেরেছিল আন্দ্রেয়া পিরলোর দল। এরপর চ্যাম্পিয়ন্স লিগে শেষ ষোলোর প্রথম লেগে পোর্তোর মাঠে ২-১ গোলে হারে তারা।

শুরু থেকে ইউভেন্তুস বল দখলে এগিয়ে থাকলেও প্রথম উল্লেখযোগ্য সুযোগটি পায় ক্রোতোনে। সপ্তম মিনিটে সতীর্থের ক্রস ডি-বক্সে পেয়ে শট লক্ষ্যে রাখতে পারেননি মিডফিল্ডার আর্কাদিউস রেকা।

২৯তম মিনিটে দারুণ এক সুযোগ আসে রোনালদোর সামনে। ডান দিক থেকে ফেদেরিকো চিয়েসার নিচু ক্রসে কাছ থেকে বলে ঠিকমতো পা ছোঁয়াতে পারেননি পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড।

৩৮তম মিনিটে আলেক্স সান্দ্রোর ক্রসে ছয় গজ বক্সের সামনে হেডে ঠিকানা খুঁজে নেন রোনালদো।

প্রথমার্ধের যোগ করা সময়ে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন তিনি। প্রথমে ডি-বক্সের বাইরে থেকে রোনালদোর শট ঝাঁপিয়ে ফেরান গোলরক্ষক। এরপর বাঁ দিকের বাইলাইনের কাছ থেকে র‍্যামজির ক্রসে ছয় গজ বক্সের সামনে লাফিয়ে হেডে বল জালে পাঠান পাঁচবারের বর্ষসেরা ফুটবলার।

পরের মিনিটেই হ্যাটট্রিক পূরণের সুবর্ণ সুযোগ আসে রোনালদোর সামনে। কিন্তু সতীর্থের পাস ডি-বক্সে ফাঁকায় পেয়েও শট লক্ষ্যে রাখতে পারেননি তিনি।

৬৫তম মিনিটে ডি-বক্সে ঢুকে রোনালদোর নেওয়া শট পা দিয়ে ফেরান গোলরক্ষক। পরের মিনিটেই স্কোরলাইন ৩-০ করেন ম্যাককেনি। কর্নারে মাটাইস ডি লিখটের হেড প্রতিপক্ষের একজনের গায়ে লেগে পেয়ে যান যুক্তরাষ্ট্রের এই মিডফিল্ডার। কাছ থেকে শটে আসরে নিজের চতুর্থ গোলটি করেন তিনি।

৭৫তম মিনিটে কাছ থেকে র‍্যামজির শট ফিরিয়ে ব্যবধান আর বাড়তে দেননি সফরকারী গোলরক্ষক।

২২ ম্যাচে ১৩ জয় ও ছয় ড্রয়ে ইউভেন্তুসের পয়েন্ট হলো ৪৫। ২৩ ম্যাচে ৪৯ পয়েন্ট নিয়ে এসি মিলান দুইয়ে, ৫৩ পয়েন্ট নিয়ে ইন্টার মিলান শীর্ষে আছে।

মিলানের দুই দলের সমান ম্যাচে ৪৪ পয়েন্ট নিয়ে চারে আছে রোমা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *