তসলিমা নাসরিনের জঙ্গি মন্তব্যে কঠিন হুশিয়ারি দিলেন মঈনের বাবা

অন্যান্য খবর

ক্রিকেটার না হলে ইসলামিক স্টেট বা আইএসআইএসের সদস্য হতেন ইংলিশ তারকা মঈন আলি—এক টুইট বার্তায় এমন মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশে নির্বাসিত ও বিতর্কিত লেখিকা তসলিমা নাসরিন। মুহূর্তের মধ্যে সেই টুইটকে ঘিরে শুরু হয় সমালোচনা। ওই টুইটের কারণে ক্ষুব্ধ হয়েছেন ইংলিশ ক্রিকেটারেরা। পরে অবশ্য টুইটটি মুছে দিয়েছেন তসলিমা নাসরিন।

ধর্মপ্রাণ মুসলমান হিসেবেই বেশ জনপ্রিয় মঈন আলি। ইংল্যান্ডের জাতীয় দলে খেলেও সব সময় নিজেকে অ্যালকোহল জাতীয় পানীয় পান থেকে বিরত রাখেন। মদ প্রস্তুতকারক কোনো প্রতিষ্ঠানের লোগোও নিজের জার্সিতে ব্যবহার করেন না মঈন। এবার তাঁর আইপিএলের দল চেন্নাই সুপার কিংসের লোগোতেও আছে মদের বিজ্ঞাপন। ভারতীয় গণমাধ্যম জানায়, ওই লোগো না কি সরিয়ে নেওয়ার অনুরোধ করেছেন মঈন। সরিয়েও নিয়েছে লোগো৷

এর মধ্যেই মঈনকে নিয়ে একটি টুইট করেন তসলিমা নাসরিন। সেখানে তিনি লিখেছেন, “মঈন আলি যদি ক্রিকেটে না আসতেন, তাহলে তিনি সম্ভবত সিরিয়ায় যেতেন আইএসআইএসে যোগ দিতে।” এমন টুইটের পর ইংলিশ ক্রিকেটার জোফরা আর্চার, সাকিব মাহমুদ, স্যাম বিলিংস,বেন ডাকেটও তার প্রতিবাদ করেছেন। 

এবার কঠিন হুশিয়ারি দিয়ে রাখলেন মঈনের বাবা মুনীর আলী। এ বিষয়ে তিনি বলেন, “আমার ছেলে মঈনের বিরুদ্ধে তসলিমা নাসরিনের জঘন্য মন্তব্য পড়ে আমি হতবাক হয়েছি। তার টুইটটিতে তিনি তার মূল মন্তব্যটিকে ‘ব্যঙ্গাত্মক’ হিসাবে বর্ণনা করেছেন। আমি তাকে একটি অভিধান নিতে বলব এবং ‘ব্যঙ্গাত্মক’ শব্দটির অর্থ দেখতে বলব। আমার মনে হয় আয়নার সামনে দাঁড়ালে উনি বুঝবেন কী লিখেছেন আর মৌলবাদই বা কাকে বলে। তার এই মন্তব্য সম্পূর্ণ ইসলাম বিরুদ্ধ। কোনও মানুষের আত্মসম্মান এবং অন্যের প্রতি সম্মান না থাকলে সে এত নীচে নামতে পারে।”

“সত্যি বলতে আমি ভীষণ ক্ষুব্ধ। যদি কোনোদিন তার সঙ্গে সাক্ষাৎ হলে আমি তাকে মুখের উপর এর জবাব দেব। আপাতত তাকে বলব অভিধানে সারকাজমের অর্থ খুঁজতে। সেই সাথে বলব- কাউকে না জেনে তাকে নিয়ে এমন মন্তব্য করা আবার পরে সেটাকে মজা বলে উড়িয়ে দেওয়া যায় না। উনি যেমনটা ভাবছেন তেমনটা নয় এটা। আমি ভাবতে পারছি না উনি আমার ছেলেকেই বেছে নিয়েছেন। ক্রিকেট বিশ্বে সকলে জানে মঈন কেমন মানুষ।”– যোগ করেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *