সর্বোচ্চ রান তাড়ার রেকর্ড গড়ে পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ করল ইংল্যান্ড

ক্রিকেট

বাবর আজমের ক্যারিয়ার সেরা ১৫৮ রানের ইনিংসে ভর করে বড় পুঁজি গড়েছিল পাকিস্তান। তবে জেমস ভিন্সের প্রথম আন্তর্জাতিক সেঞ্চুরিতে ম্লান সেটি। সফরকারীদের শেণ ম্যাচে ৩ উইকেটের ব্যবধানের উড়িয়ে দিয়ে তিন ম্যাচের সিরিজ স্বাগতিকরা জিতল ৩-০ তে। অর্থাৎ ইংল্যান্ডের দ্বিতীয় সারির দলের কাছেই হোয়াইটওয়াশ হয়েছে বাবর আজমের দল।


বার্মিংহ্যামে ৩৩২ রানের লক্ষ্য ১২ বল বাকি থাকতে ছুঁয়ে ফেলে ইংল্যান্ড। এজবাস্টনে এই প্রথম তিনশ ছাড়ানো লক্ষ্য তাড়া করে জিতল কোনো দল। ১৯৯৩ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়ার ২৭৮ রানের লক্ষ্য তাড়া ছিল আগের রেকর্ড।

তার দল জিতেছে ৩ উইকেটে। ১৩৯ বলে ১৫৮ রানের ইনিংস খেলে বাবর আজমকে থাকতে হয়েছে পরাজিত দলে।

বড় লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ২৪ ওভারে ১৬৫ রান তুললে ৫ উইকেট হারিয়ে ফেলে ইংল্যান্ড। তবে ভিন্স এবং লুইস গ্রেগরি ষষ্ঠ উইকেটে যোগ করেন ১২৯ রান। তাতে লক্ষ্যের দিকে ছুটতে থাকে ইংলিশরা।

শেষ ৪৮ বলে ৩৮ রান প্রয়োজন ছিল ইংলিশদের। সেখান থেকে ভিন্স ও গ্রেগরি দুজনকেই হারায় ইংল্যান্ড। দুটি উইকেটই পান হারিস রউফ। ভিন্স খেলেছেন ৯৫ বলে ১০২ রানের ইনিংস। গ্রেগরির ব্যাট থেকে আসে ৬৯ বলে ৭৭ রান। তবে ক্রেইগ ওভারটন ও কার্স বাকিটা কাজ সহজেই সারেন। দুই ওভার বাকি থাকতেই জয় তুলে নেয় ইংল্যান্ড।

এর আগে পাকিস্তানের পক্ষে বাবরের সেঞ্চুরি ছাড়াও ৫৮ বলে ৭৪ রানের ইনিংস খেলেন মোহাম্মদ রিজওয়ান। ইমাম-উল-হক খেলেন ৭৩ বলে ৫৬ রানের ইনিংস। ইংল্যান্ডের পক্ষে কার্স সর্বাধিক ৫ উইকেট নেন।

শুক্রবার তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথমটিতে মুখোমুখি হবে দুই দল।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

পাকিস্তান ৩৩১/৯ (৫০ ওভার)
বাবর ১৫৮ (১৩৯), রিজওয়ান ৭৪ (৫৮); কার্স ৫-৬১

ইংল্যান্ড ৩৩২/৭ (৪৮ ওভার)
ভিন্স ১০২ (৯৫), গ্রেগরি ৭৭ (৬৯); রউফ ৪-৬৫

ফল: ইংল্যান্ড ৩ উইকেটে জয়ী।
ম্যাচসেরা: জেমস ভিন্স।
সিরিজ সেরা: সাকিব মাহমুদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *