টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ খেলতে বাংলাদেশে আসছে ভারত সহ আরো দুই দেশ

ফিচার বাংলাদেশ ক্রিকেট

ভারতকে হারিয়ে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের চ্যাম্পিয়ন হয়েছে নিউজিল্যান্ড। ইতিমধ্যেই আবার ২০২১ থেকে ২০২৩ সাল পর্যন্ত আসন্ন নতুন টেস্ট চ্যাম্পিয়নশীপের সূচি ঘোষণা করেছে আইসিসি।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে অংশগ্রহণকারী দলগুলো কে কার বিপক্ষে সিরিজ খেলবে তা জানানো হয়েছে। আইসিসির বিজ্ঞপ্তিতে দেখা গেছে, বাংলাদেশ এই মৌসুমে ভারত, পাকিস্তান ও শ্রীলংকার বিপক্ষে ঘরের মাঠে সিরিজ খেলবে।

এবারের টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের মৌসুমে বাংলাদেশ মোট ছয়টি সিরিজ খেলবে। যার মধ্যে এশিয়ার তিন পরাশক্তির বিপক্ষে ঘরের মাঠে আর বাকি তিনটি সিরিজ খেলবে দক্ষিণ আফ্রিকা, নিউজিল্যান্ড এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজে।

প্রথম আসরের মতো এবারও ছয়টি করে সিরিজ খেলবে ৯ দল- তিনটি হোম ও তিনটি অ্যাওয়ে। বাংলাদেশ মোট ছয়টি সিরিজ মিলিয়ে খেলবে মোট ১২টি ম্যাচ। যা অন্য সব দলের চেয়ে কম। প্রথম আসরে ১২ ম্যাচ থাকলেও করোনার কারণে বাংলাদেশ মাত্র ৭ ম্যাচ খেলার সুযোগ পেয়েছিল।

এবার ঘরের মাঠ এবং দেশের বাইরে মোট ৬টি সিরিজ খেলবে বাংলাদেশ। প্রতি সিরিজে রয়েছে ২টি করে ম্যাচ। পাকিস্তান এ বছরই বাংলাদেশ আসবে। চলতি বছরের নভেম্বর-ডিসেম্বর দুটি টেস্ট ও তিনটি ওয়ানডে খেলবে দুই দল। এছাড়া শ্রীলংকা ও ভারত আগামী বছর বাংলাদেশ সফরে আসবে।

শ্রীলংকা আসবে মে মাসে আর ভারতের আসার সম্ভবনা রয়েছে ২০২২ সালের নভেম্বর-ডিসেম্বরে।

উল্লেখ্য, আগামী ৪ আগস্ট ইংল্যান্ড ও ভারতের মধ্যকার পাঁচ ম্যাচের সিরিজ দিয়ে শুরু হচ্ছে প্রতিযোগিতাটির নতুন আসর। এছাড়া ২০২৩ সালের জুন পর্যন্ত অ্যাশেজ ছাড়া এই চক্রে আর কোনো পাঁচ ম্যাচের সিরিজ হবে না।

নতুন পয়েন্ট সিস্টেম অনুযায়ী, জিতলে ম্যাচ প্রতি ১২ পয়েন্ট, ড্র হলে চার পয়েন্ট এবং টাইয়ে মিলবে ৬ পয়েন্ট। আগের পদ্ধতি অনুযায়ী ম্যাচের সংখ্যা যাই হোক না কেন, প্রতি সিরিজে ছিল ১২০ পয়েন্ট। ম্যাচ অনুযায়ী তা ভাগ করা হতো। আর স্লো ওভার রেটে অভিযুক্ত হলে প্রতি ওভারের জন্য একটি করে পয়েন্ট হারাবে দল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *